অভিনন্দনে সিক্ত অতনু

বৃহস্পতিবার, ০৭ নভেম্বর ২০১৯ | ৭:১৪ অপরাহ্ণ | 227 বার

অভিনন্দনে সিক্ত অতনু

রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা অতনু সরকার পেয়েছেন দুদক চেয়ারম্যানের চিঠি। এই চিঠি পেয়ে তিনি আনন্দে আত্মহারা। চিঠিতে সবুজ কালি দিয়ে দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ অতনুকে সম্বোধন করেছেন ‘প্রিয় অতনু’ বলে। গতকাল বুধবার অতনু সরকার চিঠিটি হাতে পেয়েছেন।

চিঠির সম্বোধনের পরেই লেখা হয়েছে, ‘গত ২৭ অক্টোবর ২০১৯ তারিখে দৈনিক প্রথম আলো পত্রিকায় “কৃষকের রাডার অতনু” শিরোনামে প্রকাশিত বিশেষ সংবাদটি আমার গোচরীভূত হয়েছে। অতনু তাঁর ব্লকের কৃষকদের মাঝে নিজ উদ্যোগে আবহাওয়ার পূর্বাভাস বিলিয়ে বেড়ান।’

দ্বিতীয় অনুচ্ছেদে কৃষিনির্ভর বাংলাদেশে কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের ভূমিকার প্রশংসা করা হয়েছে। মাঠপর্যায়ে দৈনন্দিন রুটিন দায়িত্ব পালনের বাইরে এক অভিনব, কার্যকরী উপায়ে কৃষকদের কাছে আবহাওয়ার পূর্বাভাস পৌঁছে দেওয়ার উদ্যোগের জন্য অতনুকে অভিনন্দন জানানো হয়েছে।

চিঠির তৃতীয় অনুচ্ছেদে দুদক চেয়ারম্যান প্রকৃতিনির্ভর ও খনার বচনকে ভরসা করে যাঁরা কৃষিকাজ করতেন, তাঁদের সঙ্গে অতনুর সেবা পাওয়া কৃষকদের তুলনা করেছেন। খনার বচনের একটি উদাহরণ টেনে তিনি বলেছেন, ‘আজ দিন বদলে গেছে। রাজশাহী জেলার গোদাগাড়ী উপজেলার দেওপাড়া ইউনিয়নে কখন বৃষ্টি হতে পারে, সেই তথ্যও আজ হাতের মুঠোয়। ফেসবুক, মুঠোফোনে খুদে বার্তা কিংবা সরাসরি মুঠোফোনে সকল কৃষকের সঙ্গে যোগাযোগ স্থাপন করে আপনি কৃষিসহায়ক তথ্যকে সকলের কাছে সহজলভ্য করে তুলেছেন। আপনার এই প্রচেষ্টা অত্যন্ত প্রশংসনীয়। এই প্রচেষ্টা নিঃসন্দেহে অন্যদের অনুপ্রাণিত করবে।’

অতনু সরকার বলেন, গতকাল বুধবার তিনি চিঠিটি হাতে পেয়েছেন। এর বাঁ পাশে ‘দুর্নীতি দমন কমিশন’ লেখা দেখে প্রথমে তিনি হতভম্ব হয়ে যান। পরে চিঠির পুরোটা পড়তেই তাঁর চোখ ভিজে ওঠে। জীবনে এ রকম ভালো লাগা আর কখনো অনুভব করেননি। অতনু সরকার বলেন, আজ থেকে তাঁর কাজের দায়িত্ব আরও বেড়ে গেল।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

Powered by Facebook Comments

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com