বানিয়াচঙ্গে শস্য কর্তন অনুষ্ঠানে কৃষি মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মঈনউদ্দীন আবদুল্লাহ্

শনিবার, ১২ মে ২০১৮ | ৯:৫৬ অপরাহ্ণ | 222 বার

বানিয়াচঙ্গে শস্য কর্তন অনুষ্ঠানে কৃষি মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মঈনউদ্দীন আবদুল্লাহ্

আজ শনিবার বানিয়াচঙ্গের যাত্রাপাশা ব্লকের কুন্ডুরপাড় মাঠে ব্রি-ধান ২৯ এর নমুনা শস্য কর্তন অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। শস্য কর্তন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কৃষি মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মোহাম্মদ মঈনউদ্দীন আবদুল্লাহ্।

এ সময় অন্যান্যদের মাঝে আরো উপস্থিত ছিলেন কৃষি মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব নজমুল ইসলাম, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক কৃষিবিদ মোহাম্মদ মহসিন, বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনষ্টিটিউটের মহাপরিচালক ড. মোঃ শাহজাহান কবির, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সিলেট অঞ্চলের অতিরিক্ত পরিচালক কৃষিবিদ আলতাবুর রহমান, হবিগঞ্জ কৃষি বিভাগের উপ-পরিচালক কৃষিবিদ মোহাম্মদ আলী, কৃষি বিপনন অধিদপ্তরের ডেপুটি সেক্রেটারি শাহনাজ বেগম, বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনষ্টিটিউটের পরিচালক তমাল লতা আদিত্য, সিলেট অঞ্চলে শস্যের নিবিড়তা বৃদ্ধিকরণ প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক মোঃ ওয়াহিদুজ্জামান, জেলা প্রশিক্ষণ কর্মকর্তা কৃষিবিদ বশির আহম্মদ সরকার, অতিরিক্ত উপ-পরিচালক কৃষিবিদ মজুমদার ইলিয়াস, বানিয়াচং উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মামুন খন্দকার, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মোস্তফা ইকবাল আজাদ, স্থানীয় নেতৃবৃন্দের মাঝে উপস্থিত ছিলেন বানিয়াচং উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন খান, বানিয়াচং উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও ৪নং বানিয়াচং দক্ষিণ পশ্চিম ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রেখাছ মিয়া, বানিয়াচং উপজেলায় কর্মরত কৃষি বিভাগের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তাবৃন্দসহ এলাকার স্থানীয় কৃষক জনতা।

শস্য কর্তন শেষে হেক্টর প্রতি (শুকনা) ৬.৪৪ মেট্রিকটন ফলন লক্ষ করা যায়। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের সভাপতিত্বে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মোস্তফা ইকবাল আজাদের পরিচালনায় শস্য কর্তন পরবর্তী কৃষক সমাবেশে প্রধান অতিথি উনার বক্তব্যে বলেন প্রকৃতিকে কোনভাবেই বিঘ্নিত করা যাবে না, তাহলে প্রকৃতি ১০ গুণ বেশী প্রতিশোধ নেবে।

কৃষির স্বার্থে খাল খনন ও নদী খনন প্রকল্প দাখিল করলে কৃষক জনতার স্বার্থে তাকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দেয়া হবে। এছাড়াও অন্যান্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন বানিয়াচং উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মামুন খন্দকার, স্থানীয় নেতৃবৃন্দের মাঝে বক্তব্য রাখেন বানিয়াচং উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন খান, বানিয়াচং উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও ৪নং বানিয়াচং দক্ষিণ পশ্চিম ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রেখাছ মিয়া, কৃষক জনতার পক্ষ থেকে বক্তব্য রাখেন মারুফ আহম্মদ, ও ডি. কৃষিবিদদের পক্ষে উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা ডি. কৃষিবিদ সনজয় কুমার দাশ।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

Development by: webnewsdesign.com