মিঠামইনে “কেঁচো ও কেঁচো সার” উৎপাদন করে সফল কৃষক দিন ইসলাম

মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০ | ১:২৯ পূর্বাহ্ণ | 125 বার

মিঠামইনে “কেঁচো ও কেঁচো সার” উৎপাদন করে সফল কৃষক দিন ইসলাম

ভার্মি কম্পোষ্ট সার/জৈব সার উৎপাদন করে মোঃ দিন ইসলাম এখন সফলতাকে ছুঁতে যাচ্ছেন। স্বপ্ন তার জৈব সারের আলোয় নিজেকে আলোকিত করার।

কৃষক মোঃ দিন ইসলাম, পিতা- জজ মিয়া, গ্রাম- কামালপুর, ওয়ার্ড নং ০৩,  ইউনিয়ন- মিঠামইন সদর, উপজেলা-মিঠামইন, জেলা-কিশোরগঞ্জ। সদস্য, কামালপুর দক্ষিণপাড়া সিআইজি কৃষি সমবায় সমিতি লিঃ।

জমিতে ভার্মি কম্পোষ্ট সার ব্যবহার করে কৃষি খাতকে আরো সম্প্রসারিত ও নিজ পরিবারকে আর্থিক ভাবে সহযোগিতা করতে নিরলস চেষ্টা করে যাচ্ছেন তিনি। আলাপকালে এমনটাই প্রকাশ করলেন প্রান্তিক এ কৃষক উদ্যোক্তা।

তার মতো জৈব সার উৎপাদনকারীদের সংখ্যাও এখন কিশোরগঞ্জ জেলার বিভিন্ন উপজেলায় বৃদ্ধি পাচ্ছে। এর ফলে প্রান্তিক পর্যায়ে কেঁচো ও গোবর দিয়ে উৎপাদিত জৈব সার জমিতে প্রয়োগে দিনদিন আগ্রহী হয়ে উঠছে কৃষকেরা। এ জৈব সার ব্যবহারে তাদের জমির উবর্রতা শক্তি বৃদ্ধির পাশাপাশি শাক-সবজি, ফল-মূলের ফলনও ভাল হচ্ছে।

গরুর গোবর আর কেঁচো থেকে জৈব ভার্মি কম্পোষ্ট সার উৎপাদন করছেন মোঃ দিন ইসলাম। স্থানীয় কৃষি বিভাগের পরামর্শে গত এক বছর আগে সার ও কেঁচো উৎপাদনের কাজ শুরু করেন তিনি।

সমিতির সদস্যরা কেঁচো সার উৎপাদনের উপর প্রশিক্ষণ গ্রহণ করে ভার্মি কম্পোষ্ট সার উৎপাদনে দিনদিন আগ্রহী হয়ে উঠছে। কৃষি অফিসের পক্ষ থেকে কৃষকদের থাই কেঁচো দ্বারা পরিবেশ বান্ধব জৈব সার তৈরির সকল প্রকার উপকরণ বিনামূল্যে সহায়তা প্রদান করা হচ্ছে।

মিঠামইন উপজেলার মিঠামইন সদর ইউনিয়নের কামালপুর গ্রামের জজ মিয়ার ছেলে মোঃ দিন ইসলাম গত এক বছর আগে কেঁচো সংগ্রহ করে নিজের ফার্মের গরুর গোবর দিয়ে প্রাথমিক পর্যায়ে ভার্মি কম্পোষ্ট সার উৎপাদন শুরু করেন তিনি।

প্রথম দিকে অল্প পরিমাণ সার উৎপাদন হলেও তার কর্মকান্ড সংশ্লিষ্ট ব্লকের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা আনিছুর রহমানের পরামর্শ ও সহযোগিতায় মোঃ দিন ইসলাম নিজ বাড়িতে ভার্মি কম্পোষ্টের প্রদর্শনী চালু করে।

বর্তমান এখান থেকে স্বল্প পরিসরে স্থানীয় কিছু সবজি চাষি ও নার্সারী মালিকরা প্রতি কেজি ২০ থেকে ৩০ টাকা দরে জৈব সার ও ৪০০ টাকা দরে কেঁচো নিয়ে যাচ্ছে। সরকারি পর্যায়ে অর্থিক সহযোগিতা পেলে ব্যবসার পরিধি আরো প্রসার ঘটানো সম্ভব হবে বলে মনে করেন দিন ইসলাম।

মোঃ দিন ইসলামের জৈব সার উৎপাদন দেখে বেকার যুবকরা দিনদিন আগ্রহী হয়ে উঠছে। কৃষি অফিস থেকে থাই কেঁচো থেকে শুরু করে প্রদর্শনীর জন্য সকল প্রকার উপকরণ ও সার্বিক পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছে।

জৈব সার উৎপাদন এবং নিজের সবজি ক্ষেত থেকে শুরু করে ধান ক্ষেতে সার ব্যবহারসহ প্রদর্শনীতে উৎপাদনকৃত সার সমিতির কিছু সদস্যদের মাঝে বিতরণও করছেন মোঃ দিন ইসলাম।

কেঁচো এবং জৈব সার(কেঁচো সার) কিনে নিতে চাইলে, মোঃ দিন ইসলাম, ভার্মি কম্পোস্ট উৎপাদন (কেঁচো সার) খামার, কামালপুর, মিঠামইন, কিশোরগঞ্জ। জরুরী যোগাযোগ করতে পারেন। মোবাইল নাম্বার- ০১৯২৫ ৭৩২৮১৪ অথবা আনিছুর রহমান, উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা, মিঠামইন, কিশোরগঞ্জ। মোবাইল- ০১৯১৫ ২০৪১৩৮।

উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ মো. রাফিউল ইসলাম জানান, ফসলি জমিতে রাসায়নিক সারের ব্যবহার কমানো ও কৃষকদেরকে পরিবেশ বান্ধব কৃষি প্রযুক্তি ব্যবহারে উদ্ধুদ্ধ করতেই সরকার এই পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে।

বর্তমানে জৈব সার উৎপাদনের বিষয়টি উপজেলার কৃষকদের মাঝে ছড়িয়ে পড়ায় চাষিরা ভার্মি কম্পোষ্ট সার ব্যবহারে আগ্রহী হয়ে উঠছে। আমরা কৃষকদের পরিবেশ বান্ধব জৈব সার ব্যবহারের নিয়মিত পরামর্শ প্রদান করছি।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

Powered by Facebook Comments

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com