অনুমোদন পেল বোরো ধানের নতুন দুইটি জাত: ব্রি ধান১০১ ও ব্রি ধান১০২

বৃহস্পতিবার, ২০ জানুয়ারি ২০২২ | ৮:০৮ অপরাহ্ণ | 136 বার

অনুমোদন পেল বোরো ধানের নতুন দুইটি জাত: ব্রি ধান১০১ ও ব্রি ধান১০২
বোরো মওসুমের ব্যাকটেরিয়াজনিত পোড়া রোগ প্রতিরোধী ও উচ্চ জিংক সমৃদ্ধ দুইটি নতুন উচ্চ ফলনশীল ধানের জাত উদ্ভাবন করেছে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট (ব্রি)। নতুন দুইটি জাত হচ্ছে ব্রি ধান১০১ ও ব্রি ধান১০২। অদ্য ১৮ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত জাতীয় বীজ বোর্ডের ১০৬তম সভায় জাতগুলো সারা দেশজুড়ে চাষাবাদের জন্য অবমুক্ত করা হয়। এর ফলে ব্রি উদ্ভাবিত সর্বমোট ধানের জাত সংখ্যা হলো ১০৮টি। ব্রি ধান১০১ বোরো মওসুমের ব্যাকটেরিয়াজনিত পোড়া রোগ প্রতিরোধী জাত। এ জাতের ডিগ পাতা খাড়া, প্রশস্ত ও লম্বা। পাতার রং গাঢ় সবুজ। এর গড় ফলন হেক্টর প্রতি ৭.৭২ টন। তবে উপযুক্ত পরিচর্যা পেলে ব্রি ধান১০১ এর ফলন হেক্টর প্রতি ৮.৯৯ টন পর্যন্ত পাওয়া যায়। এর দানা লম্বা ও চিকন এবং সোনালী বর্ণের। এ জাতের গড় জীবনকাল ১৪২ দিন যা বোরো মওসুমের জনপ্রিয় জাত ব্রি ধান৫৮ এর চেয়ে ৪ (চার) দিন আগাম। ১০০০ টি পুষ্ট ধানের ওজন গড়ে ২৩.১ গ্রাম। ধানের দানায় অ্যামাইলোজের পরিমাণ শতকরা ২৫.০ ভাগ এবং প্রোটিনের পরিমাণ শতকরা ৯.৮ ভাগ। ভাত ঝরঝরে। ব্রি ধান১০২ বোরো মওসুমের একটি উচ্চমাত্রার জিংক সমৃদ্ধ জাত। এ জাতের ডিগ পাতা খাড়া, প্রশস্ত ও লম্বা। পাতার রং গাঢ় সবুজ। এর গড় ফলন হেক্টর প্রতি ৮.১ টন। তবে উপযুক্ত পরিচর্যা পেলে ব্রি ধান১০২ এর ফলন হেক্টর প্রতি ৯.৬০ টন পর্যন্ত পাওয়া যায়। এর দানা লম্বা ও চিকন এবং সোনালী বর্ণের। এ জাতের গড় জীবনকাল ১৫০ দিন যা বোরো মওসুমের জনপ্রিয় জাত ব্রি ধান২৯ এর চেয়ে ২ (দুই) দিন আগাম। ১০০০ টি পুষ্ট ধানের ওজন গড়ে ২২.৭ গ্রাম। ধানের দানায় অ্যামাইলোজের পরিমাণ শতকরা ২৮.০ ভাগ এবং প্রোটিনের পরিমাণ শতকরা ৭.৫ ভাগ। ভাত ঝরঝরে। জাতটির বিশেষ বৈশিষ্ঠ্য হলো উচ্চমাত্রার জিংক সমৃদ্ধ (২৫.৫ মিলি গ্রাম/কেজি) যা ব্রি ধান২৯ (১৮.২ মিলি গ্রাম/কেজি) এর চেয়ে ৭.৩ মিলি গ্রাম/কেজি বেশী ।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

Powered by Facebook Comments

webnewsdesign.com

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com